ঢাকাসোমবার , ২৪ অক্টোবর ২০২২
  1. Btribune Eng
  2. আন্তর্জাতিক
  3. এক্সক্লুসিভ
  4. খেলার বার্তা
  5. চাকুরি – শিক্ষা
  6. জাতীয়
  7. ধর্ম
  8. বিজ্ঞান – প্রযুক্তি
  9. বিনোদন
  10. রাজনীতি
  11. লাইফ স্টাইল
  12. স্যোসাল মিডিয়া

থাকেন যুক্তরাষ্ট্রে, নিয়মিত কলেজ করেন রংপুরে!

Ar Monna
অক্টোবর ২৪, ২০২২ ১:৩০ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

দীর্ঘদিন ধরেই আমেরিকায় বসবাস করছেন রংপুর নগরীর মাওলানা কেরামত আলী কলেজের জীববিদ্যা বিভাগের প্রদর্শক মাসুদা বেগমন। ঠিকমতো দেশেও আসেন না তিনি। তবে কলেজে না এলেও হাজিরার খাতায় তার নাম স্বাক্ষর ঠিকই রয়েছে। রমনকি রংপুর নগরীর কাঁচারী বাজার সোনালী ব্যাংক শাখা থেকে নিয়মিত বেতন-ভাতাও উত্তোলন করছেন তিনি। কিন্তু বিদেশে থেকে হাজিরা খাতায় সই, ক্লাসে পাঠদান ও বেতন ভাতা উত্তোলন কি করে, এ প্রশ্নের জবাব দিতে নারাজ কলেজ প্রশাসন।

এছাড়া জানা যায়, চাকরিবিধি অনুযায়ী ওই শিক্ষকের চাকরিতে বহাল থাকার সুযোগ না থাকলেও সাবেক অধ্যক্ষের আপন ছোট বোন হওয়াতে এ বিষয়ে নিরব ভূমিকা পালন করছে কলেজের গভর্নিং বডি। ইতিমধ্যে এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে শিক্ষার্থীদের অভিভাবক ও সচেতন মহলসহ কলেজে কর্মরত শিক্ষক-কর্মচারীদের অনেকের মধ্যে মৌন ক্ষোভ থাকলেও এ নিয়ে মাথা ব্যাথা নেই অধ্যক্ষের।অভিযোগ উঠেছে, কলেজ কমিটির বর্তমান সভাপতি মনোয়ার হোসেন পূর্বে সেখানকার অধ্যক্ষ ছিলেন। আর তারই আপন ছোট বোন হন শিক্ষক মাসুদা বেগম। বড় ভাইয়ের খুঁটির জোরে বিদেশে থেকেও অবৈধভাবে সব সুযোগ-সুবিধা নিচ্ছেন ওই শিক্ষক।

এছাড়া দীর্ঘদিন কয়েক বছর ধরে যুক্তরাষ্ট্রে পরিবার নিয়ে বসবাস করা শিক্ষক মাসুদা বেগমের বেতন-ভাতা উত্তোলন প্রসঙ্গে মাওলানা কেরামত আলী কলেজের বর্তমান ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ বারেক আলী শুরুতে কথা বলতে আপত্তি প্রকাশ করেন। একপর্যায়ে তিনি ওই শিক্ষকের যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস করার বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, মাসুদা বেগম কয়েক বছর ধরে বিদেশে আছেন সত্য। কিন্তু তিনি দেশেও যাওয়া আসা করছেন। এ বছরের ফেব্রুয়ারি মাসেও এসেছিল। দেশে থাকাকালীন কলেজে কয়েকদিন তার উপস্থিতি ছিল।বেতন-ভাতা প্রদানের প্রক্রিয়া বৈধ কিনা এ প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, বেসরকারি কলেজে একবার বেতন বন্ধ করা হলে, পরে বেতন উত্তোলনে নানা জটিলতা সৃষ্টি হয়। এ কারণে তার বেতন-ভাতা বন্ধ করা হয়নি।

তবে বেশিরভাগ শিক্ষক বিষয়টি এরিয়ে যান। কলেজের গভর্নিং বডির সভাপতি মনোয়ার হোসেন বলেন, চলতি বছরে অসুস্থতাজনিত ছুটিতে মাসুদা বেগম যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থান করছেন। বর্তমানে গত তিন মাস ধরে মাসুদাকে অর্ধেক বেতন দেওয়া হচ্ছে। কোনো অনিয়ম হয়নি। বিভিন্ন রকম অভিযোগ উঠলেও এসবের সত্যতা নেই বলেও দাবি করেন সাবেক এই অধ্যক্ষ।কাঁচারী বাজার সোনালী ব্যাংক শাখার ম্যানেজার নন্দিতা সরকার বলেন, চলতি বছরের ৩১ আগস্ট পর্যন্ত মাসুদা বেগমের অ্যাকাউন্টে নিয়মিত র্পূণ মাসের বেতন জমা হয়েছে। এ বিষয়ে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতর রংপুর অঞ্চলের পরিচালক প্রফেসর এস. এম আবদুল মতিন লস্করলেন, ওই কলেজ ঘিরে বেশ কিছু লিখিত অভিযোগ রয়েছে। আমরা অভিযোগগুলো খতিয়ে দেখার পাশাপাশি নিবিড়ভাবে তদন্ত করছি। তদন্ত প্রক্রিয়া শেষে অভিযোগ প্রমাণিত হলে অবশ্যই ওই শিক্ষকসহ অনিয়মের সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।